উত্তরায় নতুন বিজিএমইএ ভবন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

রাজধানীর উত্তরায় পোশাক ও রপ্তানিকারকদের শীর্ষ সংগঠন বাংলাদেশ গার্মেন্ট ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যান্ড এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিজিএমইএ) এর নতুন ভবন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বুধবার (৩ এপ্রিল) প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে ভবনটির উদ্বোধন করেন তিনি।

এর মধ্য দিয়ে রাজধানীর হাতিরঝিল প্রকল্পের ওপর নির্মিত বিতর্কিত ভবন ছেড়ে গেল বিজিএমইএ।

এসময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা বেসরকারি খাতকে সব থেকে বেশি গুরুত্ব দিয়েছি। প্রতিটি খাতিই উন্মুক্ত করে দিয়েছি। যাতে আরও বেশি ব্যবসা বাণিজ্য হয়।

তিনি বলেন, ঢাকার জলাধার বন্ধ করার কারণে আগুন নেভাতে পানির অভাব দেখা দেয়। ব্যবসা বাণিজ্যে কোনো ধরনের প্রতিবন্ধকতা তৈরি হোক, তা সরকার চায় না। এখন হাওয়া ভবনের মতো কমিশন দিতে হয় না ব্যবসায়ীদের।

জানা গেছে, উত্তরার দুই টাওয়ার বিশিষ্ট ১৩ তলা ভবনটির কাজ দ্রুতগতিতে চলছে। এরই মধ্যে বেইসমেন্টসহ ভবনের পাঁচতলার কাজ সম্পন্ন হয়েছে। ৪০ হাজার বর্গফুটের প্রদর্শনী হলসহ ভবনটি তৈরি হচ্ছে রাজধানীর উত্তরার ১৭ নম্বর সেক্টরে লেকসাইট ভিউয়ের সাড়ে পাঁচ বিঘা জমির ওপর।

নতুন বিজিএমইএ ভবনে থাকছে- বড় আকারের অডিটরিয়াম, এক্সিবিশন সেন্টার, শোরুম। ভবনটির তিন দিক থেকে যাতায়াতের সুবিধা থাকছে।

প্রসঙ্গত, জমির স্বত্ব না থাকা এবং জলাধার আইন লঙ্ঘন করায় হাতিরঝিল প্রকল্প এলাকার বিজিএমইএ ভবনটি ২০১১ সালের ৩ এপ্রিল ভেঙে ফেলতে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। দুই বছর পর ২০১৩ সালের ১৯ মার্চ হাইকোর্টের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশিত হয়। এই রায়ের বিরুদ্ধে লিভ টু আপিল করে বিজিএমইএ। শুনানি শেষে ২০১৬ সালের ২ জুন আপিল বিভাগ ওই আবেদন খারিজ করে রায় দেয়। এরপর একাধিকবার সময় বাড়িয়ে সর্বশেষ ১২ এপ্রিলের মধ্যে ভবনটি স্থানান্তরের বিষয়ে মুচলেকা দেওয়া হয় বিজিএমইএ’র পক্ষ থেকে।

ছড়িয়ে দিনঃ